Welcome to the Embassy of the People's Republic of Bangladesh, Muscat, the Sultanate of Oman


Title
বাংলাদেশ দূতাবাস, মাস্কাট এ শহীদ শেখ রাসেল-এঁর ৫৯তম জন্মদিন স্মরণে ‘শেখ রাসেল দিবস-২০২২’ উদযাপন
Details

মাস্কাট, ১৯ অক্টোবর ২০২২

বাংলাদেশ দূতাবাস, মাস্কাট এর আয়োজনে ‘শেখ রাসেল: নির্মলতার প্রতীক, দুরন্ত প্রাণবন্ত নির্ভীক’ - এই প্রতিপাদ্যকে সামনে রেখে যথাযোগ্য মর্যাদা ও ভাব-গাম্ভীর্যেরমধ্য দিয়ে ১৮ অক্টোবর ২০২২ জাতির পিতা বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমানের কনিষ্ঠ পুত্র শহীদ শেখ রাসেল এঁর- ৫৯তম জন্মদিন স্মরণে ‘শেখ রাসেল দিবস’ পালিত হয়েছে। মান্যবর রাষ্ট্রদূত জনাব মোঃ নাজমুল ইসলাম মহোদয় এর সভাপতিত্বে মাস্কাটে বাংলাদেশ কমিউনিটির সদস্যবৃন্দ, পেশাজীবি, ব্যবসায়ীগণ ও শিশু-কিশোর এবং দূতাবাসের কর্মকর্তা-কর্মচারীবৃন্দ উক্ত অনুষ্ঠানে অংশগ্রহণ করেন।

এ দিন দূতাবাসের অভ্যন্তরে স্থাপিত শহীদ শেখ রাসেল এর প্রতিকৃতিতে পুষ্পস্তবক অর্পণের মাধ্যমে অনুষ্ঠানের সূচনা করা হয়। পুষ্পস্তবক অর্পণ শেষে শহীদ শেখ রাসেল সহ ১৯৭৫ সালের ১৫ আগষ্ট জাতির পিতা বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমান ও তাঁর পরিবারের সকল শহীদদের এবং ১৯৭১ সালে মহান মুক্তিযুদ্ধে ৩০ লক্ষ শহীদ, যুদ্ধাহত বীর মুক্তিযোদ্ধা এবং বীর মুক্তিযোদ্ধাদের গভীর শ্রদ্ধার সাথে স্মরণ করা হয়।


পবিত্র কোরআন থেকে তেলাওয়াত, পবিত্র ত্রিপিটক ও পবিত্র গীতা পাঠের মধ্য দিয়ে আলোচনা অনুষ্ঠান শুরু হয়।  দিবসটি উপলক্ষে মহামান্য রাষ্ট্রপতি এবং মাননীয় প্রধানমন্ত্রী কর্তৃক প্রদত্ত বাণীসমূহ পাঠ করে শোনানো হয়, এরপর শহীদ শেখ রাসেলের উপর নির্মীত প্রামান্য চিত্র প্রদর্শন করা হয়।

দিবসটি উপলক্ষ্যে আয়োজিত আলোচনা পর্বে বক্তারা শহীদ শেখ রাসেলের শৈশবের বিভিন্ন দিক তুলে ধরেন। দূতাবাসের মান্যবর রাষ্ট্রদূত জনাব মোঃ নাজমুল ইসলাম মহোদয় তাঁর বক্তব্যের শুরুতে ১৯৭৫ সালের ১৫ই আগষ্ট জাতির পিতা বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমান ও তাঁর পরিবারের সকল শহীদদের এবং ১৯৭১ সালে মহান মুক্তিযুদ্ধে 30 লক্ষ শহীদ, যুদ্ধাহত বীর মুক্তিযোদ্ধা এবং বীর মুক্তিযোদ্ধাদের গভীর শ্রদ্ধার সাথে স্মরণ করেন। এ সময় তিনি শেখ রাসেলের কথা স্মরণ করে বলেন, সদা হাস্যোজ্জ্বল, প্রণচঞ্চল ছিলেন নিষ্পাপ শিশু রাসেল। ৭৫-এর ঘাতকেরা তাকেও রেহাই দেয়নি। ঘাতকদের বঙ্গবন্ধুর রক্তের উত্তরাধিকারদের নিশ্চিহ্ন করার অপচেষ্টা সফল হয় নি। আজ তিনি বেচে থাকলে, আমরা হয়তো একজন দূরদর্শী নেতা পেতাম। দেশের শিশু-কিশোর, তরুণ প্রজন্মের কাছে রাসেল এক ভালোবাসার নাম এবং তিনি আগামী প্রজন্মের শিশু-কিশোরদের কাছে অনুকরনীয় অনুপ্রেরনা হযে বেঁচে থাকবেন বলে সমগ্র বাঙ্গালী জাতি বিশ্বাস করে।

মান্যবর রাষ্ট্রদূত জনাব মোঃ নাজমুল ইসলাম মহোদয় দূতাবাস কর্তৃক আয়োজিত চিত্রাংকন প্রতিযোগিতায় প্রথম, দ্বিতীয় ও তৃতীয় স্থান অধিকারকারীদের মধ্যে পুরস্কার বিতরণ করেণ। সবশেষে শহীদ শেখ রাসেল এর জন্মদিন উপলক্ষে কেক কাটা হয়। দূতাবাসের মান্যবর রাষ্ট্রদূত জনাব মোঃ নাজমুল ইসলাম মহোদয় অনুষ্ঠানে আগত সকলকে ধন্যবাদ জ্ঞাপন করেন। এসময় তিনি ওমান প্রবাসী সকল বাংলাদেশীকে স্থানীয় আইন কানুন মেনে চলার নির্দেশনা প্রদান করেন এবং বৈধ উপায়ে বাংলাদেশে রেমিট্যান্স প্রেরণের জন্য অনুরোধ করেন। তিনি দেশেন সুনাম অক্ষুন্ন রাখতে এবং দেশের উন্নয়নে সবাইকে একযোগে কাজ করার আহবান জানান। অবশেষে মান্যবর রাষ্ট্রদূত জনাব মোঃ নাজমুল ইসলাম মহোদয় সকলকে দেশের সামগ্রিক কল্যাণে একত্রে কাজ করার আহবান জানিয়ে সভা সমাপ্ত করেন। অনুষ্ঠান শেষে আগত অতিথিদের জন্যে আপ্যায়নের ব্যবস্থা করা হয়।

Attachments
Publish Date
18/10/2022
Archieve Date
18/02/2025